Monday , January 25 2021

সকালে উঠানে খেলছিল ছেলে, দুপুরে হলো লা’শ

বাড়ির উঠানে খেলছিল মো. বায়েজিদ। দীর্ঘক্ষণ সন্তানকে না দেখে পাগলের মতো খুঁজতে থাকেন মা-বাবা। একপর্যায়ে বায়েজিদের লা’শ পুকুরে ভাসতে দেখেন তারা। আদরের ছোট সন্তানকে হারিয়ে পাগলপ্রায় এ দম্পতি।

রোববার দুপুরে ঘটনাটি ঘটেছে কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার বাকশীমূল পূর্বপাড়ার মোল্লা বাড়িতে। বায়েজিদ একই বাড়ির শরীফুল ইসলাম ও রেহানা আক্তার দম্পতির ছেলে। চার ছেলে-মেয়ের মধ্যে বায়েজিদ সবার ছোট।

বায়েজিদের বাড়ি গিয়ে দেখা যায়, সন্তানের লা’শ জড়িয়ে ধরে হাউমাউ করে কাঁদছেন শরীফুল ইসলাম। কোনো সান্ত্বনা দিয়েই কান্না থা’মানো যাচ্ছে না। তার আহাজারিতে উপস্থিত অনেকেই কেঁদেছেন।

স্বজনরা জানান, সকালে বাড়ির উঠানে খেলা করছিল বায়েজিদ। কিছুক্ষণ পর তাকে না দেখে মা রেহানা আক্তার ও বাবা শরীফুল ইসলাম খুঁজতে বের হন। বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজির একপর্যায়ে দুপুরে বাড়ির পাশে পুকুরে সন্তানের লা’শ ভাসতে দেখেন তারা।

পরে বায়েজিদকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে চিকিৎসক মৃ’ত ঘোষণা করেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা মো. মীর হোসেন মিঠু বলেন, হাসপাতালে আনার আগেই শিশুটির মৃ’ত্যু হয়েছে।